আমি যদি কারও প্রেমে পড়ি তাহলে কিভাবে তা জানতে পারব?



প্রশ্ন: আমি যদি কারও প্রেমে পড়ি তাহলে কিভাবে তা জানতে পারব?

উত্তর:
প্রেম বা ভালবাসা হলো খুবই শক্তিশালী একটি আবেগীয় বিষয় বা মানসিক অস্থিরতা। এই আবেগীয় বিষয় বা মানসিক অস্থিরতার উপর নির্ভর করে আমরা অনেক বড় বড় সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতে পারি, এমনকি আমরা বিয়েও করতে পারি, কারণ আমরা অনুভব করতে পারি যে, “আমরা কারও প্রেমে পড়েছি।” কিন্তু এই প্রেম বা ভালবাসাপূর্ণ অবস্থাটির শেষ পরিণতি হয় প্রেম করে বিয়ে করার প্রায় অর্ধেক বিয়ে ভেঙে যাওয়ার মধ্য দিয়ে। বাইবেল আমাদের এই শিক্ষা দেয় যে, সত্যিকারের ভালবাসা কোন মানসিক আবেগ বা অস্থিরতা নয়, যা আসে আবার চলেও যায়, কিন্তু এরূপ ভালবাসা হচ্ছে একটি সিদ্ধান্ত। যারা আমাদের ভালবাসে আমরা যে শুধু তাদেরই ভালবাসব তা নয়; বরং খ্রীষ্ট যেভাবে আমাদের সকলকে ভালবেসেছেন ঠিক একইভাবে যারা আমাদের ভালবাসে না তাদেরও ভালবাসতে হবে (লূক ৬:৩৫ পদ)। “ভালবাসা সব সময় ধৈয ধরে, দয়া করে, হিংসা করে না, গর্ব করে না, অহংকার করে না, খারাপ ব্যবহার করে না, নিজের সুবিধার চেষ্টা করে না, রাগ করে না, কারও মন্দ ব্যবহারের কথা মনে রাখে না, মন্দ কিছু নিয়ে আনন্দ করে না। ভালবাসা সব কিছুই সহ্য করে, সকলকেই বিশ্বাস করতে আগ্রহী, সব কিছুতে আশা রাখে আর সব অবস্থায় স্থির থাকে” (১করিন্থীয় ১৩:৪-৭ পদ)।

কারও “প্রেমে পড়া” খুবই সহজ একটি বিষয়, কিন্তু আমরা যদি সত্যিকারভাবে কারও প্রেমে পড়ার অনুভূতি কী তা অনুভব করতে চাই তাহলে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণের আগে আমাদের অবশ্যই নিজেদের কাছে কিছু প্রশ্ন করা প্রয়োজন। প্রথমত, এই ব্যক্তি (পুরুষ/মহিলা) কী একজন খ্রীষ্টিয়ান, অর্থাৎ সে কী সম্পূর্ণভাবে তার জীবন খ্রীষ্টের হাতে সমর্পণ করেছে? সে (পুরুষ/মহিলা) কী তার ব্যক্তিগত পরিত্রাণ লাভের জন্য একমাত্র খ্রীষ্টকেই বিশ্বাস করে? তাছাড়া যদি আপনি সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকেন যে, আপনার হৃদয় ও আপনার সমস্ত আবেগ-অনুভূতি অন্য কাউকে দেবেন তাহলে আপনার উচিত নিজেকে এরূপ কিছু প্রশ্ন করা- আপনি কী অন্যান্য সকলের চেয়ে ঐ ব্যক্তিকে (পুরুষ/মহিলা) স্বইচ্ছায় শীর্ষস্থানে রাখতে চাইছেন এবং ঈশ্বরের সাথে আপনার যে সম্পর্ক সেই সম্পর্ককে দ্বিতীয় স্থানে রাখছেন কি না। বাইবেল আমাদের বলে যে, যখন দুইজন ব্যক্তি (পুরুষ ও মহিলা) বিয়ে করে তখন তারা একদেহ হয় (আদিপুস্তক ২:২৪; মথি ১৯:৫ পদ)।

আপনি যখন আপনার ভালবাসার মানুষটিকে জীবনসঙ্গী করতে চান তখন এই বিষয়টি বিবেচনা করা দরকার যে, সে একজন ভাল প্রার্থী কি না। সে (পুং/স্ত্রী) কী তার ব্যক্তি জীবনে ঈশ্বরকে সর্বপ্রথম স্থানে রেখেছে? সে (পুং/স্ত্রী) কী তার বৈবাহিক জীবনে এমন সম্পর্ক গঠন করতে সমর্থ যা তার বিবাহকে দীর্ঘস্থায়ী করবে? আমরা যখন সত্যিকার অর্থে কারও প্রেমে পড়ি তখন তা মেপে দেখার সঠিক মাপকাঠি না থাকলেও এক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়টি হলো- আমরা কী আমাদের নিজেদের জীবনের জন্য শুধুমাত্র আমাদের আবেগ বা ভাবকে প্রাধান্য দিচ্ছি, না কি ঈশ্বরের ইচ্ছাগুলো অনুসরণ করছি। সত্যিকারের প্রেম বা ভালবাসা হলো একটি সঠিক ও নিখুঁত সিদ্ধান্ত গ্রহণের মত একটি বিষয়। এটি কেবলমাত্র কোন মানসিক আবেগ বা মনের অস্থিরতার বিষয় নয়। শাস্ত্রমতে সত্যিকারের ভালবাসা হলো- আপনি কেবল কারও প্রেমে পড়লেই যে তাকে ভালবাসবেন তা নয়, বরং এই ভালবাসা হচ্ছে সব সময়ের জন্য যে কাউকে সমানভাবে ভালবেসে যাওয়া।



বাংলা হোম পেজে ফিরে যান



আমি যদি কারও প্রেমে পড়ি তাহলে কিভাবে তা জানতে পারব?