খ্রীষ্টানদের কি তাদের পাপের জন্য ক্ষমা চেয়ে যেতে হবে?


প্রশ্ন: খ্রীষ্টানদের কি তাদের পাপের জন্য ক্ষমা চেয়ে যেতে হবে?

উত্তর:
একটি ঘন ঘন প্রশ্ন হ’ল “আমি পাপ করলে কি হয়, এবং ঈশ্বরের কাছে এই পাপ স্বীকার করার সুযোগ পাওয়ার আগেই কি আমি মারা যাই?” আর একটি সাধারণ প্রশ্ন হ’ল আমি যদি কোনো পাপ করি, কিন্তু তারপরে তা ভুলে যাই এবং ঈশ্বরের কাছে স্বীকার করার কথা কখনও মনে রাখি না তবে কি হবে? এই উভয় প্রশ্নই একটি ত্রুটিযুক্ত অনুমানের উপরে স্থাপিত হয় I পরিত্রাণ বিশ্বাসীদের মৃত্যুর আগে তারা যে সমস্ত পাপ করে তা স্বীকার করা এবং অনুতপ্ত হওয়ার চেষ্টা করার বিষয় নয় I একজন খ্রীষ্টান প্রতিটি পাপ স্বীকার করেছে এবং অনুতপ্ত করেছে কিনা তার উপরে ভিত্তি করে পরিত্রাণ হয় না I হ্যাঁ, আমরা যে পাপ করেছি তা অবগত হওয়ার সাথে সাথে ঈশ্বরের কাছে আমাদের পাপ স্বীকার করা উচিত I তবে আমাদের সর্বদা ঈশ্বরের কাছে ক্ষমা চাওয়ার দরকার নেই I যখন আমরা পরিত্রাণের জন্য যীশু খ্রীষ্টের প্রতি আমাদের বিশ্বাস স্থাপন করি তখন আমাদের সমস্ত পাপ ক্ষমা করা হয় I তা অতীত, বর্তমান, এবং ভবিষ্যত বড় বা ছোটকে অন্তর্ভুক্ত করে I বিশ্বাসীদের তাদের পাপ ক্ষমা করার জন্য ক্ষমা চাইতে থাকতে বা অনুতাপ করতে হবে না I যীশু আমাদের সমস্ত পাপের শাস্তি দিতে মারা গিয়েছিলেন এবং যখন তাদের ক্ষমা করা হয় তখন সমস্ত পাপ ক্ষমা করা হয় (কলসীয় 1:14; প্রেরিত 10:43) I

আমাদের যা করতে হবে তা হ’ল পাপকে স্বীকার করা: “আমরা যদি আমাদের পাপ স্বীকার করি, তিনি বিশ্বস্ত এবং ন্যায়পরায়ণ এবং তিনি আমাদের পাপ ক্ষমা করবেন এবং সমস্ত অধার্মিকতা থেকে শুদ্ধ করবেন” (1 যোহন 1:9) I এই পদটি আমাদের যা করতে বলে তা হ’ল ঈশ্বরের কাছে আমাদের পাপগুলি “স্বীকার করা”: “স্বীকার করা” শব্দটির অর্থ হ’ল “সম্মত হওয়া” I আমরা যখন ঈশ্বরের কাছে পাপ স্বীকার করি, আমরা ঈশ্বরের সাথে সহমত হই যে আমরা ভুল, যে আমরা পাপ করেছি I তিনি “বিশ্বস্ত ও ন্যায়পরায়ণ” এই সত্যের কারণে ঈশ্বর চলমান ভিত্তিতে স্বীকারোক্তির মাধ্যমে, ঈশ্বর আমাদের ক্ষমা করেন I ঈশ্বর কিভাবে “বিশ্বস্ত ও ন্যায়পরায়ণ”? আমাদের পাপের জন্য খ্রীষ্টের মূল্য প্রদানের প্রয়োগের দ্বারা তিনি ন্যায়পরায়ণ, স্বীকৃতি দেয় যে পাপগুলির সত্যই প্রায়শ্চিত্ত হয়েছে I তিনি বিশ্বস্ত পাপ ক্ষমা করার দ্বারা, যা তিনি তাদের জন্য প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন যারা খ্রীষ্টকে উদ্ধারকর্তা হিসাবে গ্রহণ করে I

একই সময়ে, 1 যোহন 1:9 ইঙ্গিত দেয় যে ক্ষমা যে কোনো ভাবে ঈশ্বরের কাছে আমাদের পাপ স্বীকারের উপরে নির্ভরশীল I খ্রীষ্টকে উদ্ধারকর্তা হিসাবে গ্রহণ করার মুহুর্তে যদি আমাদের সমস্ত পাপ ক্ষমা হয় তবে কিভাবে এটি কাজ করে? দেখে মনে হয় যে প্রেরিত যোহন এখানে যা বর্ণনা করেছেন তা হ’ল “সম্পর্কযুক্ত” ক্ষমা I খ্রীষ্টকে উদ্ধারকর্তা হিসাবে গ্রহণ করার মুহুর্তে আমাদের সমস্ত পাপ “অবস্থানগতভাবে” ক্ষমা করা হয় I এই অবস্থানগত ক্ষমা আমাদের পরিত্রাণ এবং স্বর্গে চিরস্থায়ী গৃহের প্রতিশ্রুতি দেয় I আমরা মৃত্যুর পরে যখন ঈশ্বরের সামনে দাঁড়াই তখন ঈশ্বর আমাদের পাপের কারণে স্বর্গে প্রবেশ অস্বীকার করবেন না I তা হ’ল অবস্থানগত ক্ষমা I সম্পর্যুক্ত ক্ষমার ধারনাটি এই ভিত্তিতে তৈরী হয় যে আমরা যখন পাপ করি তখন আমরা ঈশ্বরকে অপমান করি এবং তাঁর আত্মাকে দুঃখী করি (ইফিষীয় 4:30) I যদিও ঈশ্বর চূড়ান্তভাবে আমাদের কৃত পাপ ক্ষমা করে দিয়েছেন, তবুও সেগুলি ঈশ্বরের সাথে আমাদের সম্পর্কের ক্ষেত্রে বাধা বা অন্তরায় সৃষ্টি করে I যে যুবক তার বাবার বিরুদ্ধে পাপ করে তাকে পরিবার থেকে বার করে দেওয়া হয়না I একজন ঐশ্বরিক পিতা তাঁর সন্তানদের নিঃশর্তে ক্ষমা করবেন I একই সময়ে সম্পর্ক পুনরুদ্ধার না হওয়া পর্যন্ত পিতা এবং পুত্রের মধ্যে একটি ভাল সম্পর্ক অর্জন করা যায় না I এটি তখনই ঘটে যখন কোনো সন্তান তার বাবার কাছে ভুল স্বীকার করে এবং ক্ষমা চায় I এই কারণেই আমরা ঈশ্বরের কাছে আমাদের পাপ স্বীকার করি আমাদের পরিত্রাণ বজায় রাখতে নয়, নিজেকে ঈশ্বরের সাথে নিবিড় সহভাগিতায় ফিরিয়ে আনতে যিনি আমাদের ভালবাসেন এবং ইতিমধ্যে আমাদের ক্ষমা করে দিয়েছেন I

English
বাংলা হোম পেজে ফিরে যান
খ্রীষ্টানদের কি তাদের পাপের জন্য ক্ষমা চেয়ে যেতে হবে?

কিভাবে খুঁজে ...

ঈশ্বর সঙ্গে অনন্তকাল কাটা



ঈশ্বরের কাছ থেকে ক্ষমা লাভ করুন